আগৈলঝাড়ায় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের উদ্যোগে ৪৩ তম জাতীয় শোক দিবস পালিত

0
(0)

জয় রায়,আগৈলঝাড়া প্রতিনিধিঃ
বরিশালের আগৈলঝাড়ার বাকাল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ অঙ্গ সহযোগী সংগঠন ও ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে যথাযথ মর্যাদায় ৪৩তম জাতীয় শোক দিবস পালিত হয়েছে। গতকাল সোমবার সকালে উপজেলার পয়সা মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও কলেজ হলরুমে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন দলীয় নেতৃবৃন্দ। ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট ঘাতকের গুলিতে নিহত জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও মুক্তিযোদ্ধা সংগঠক, কৃষক কুলের নয়ন মনি সাবেক মন্ত্রী শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত সহ সকল সকল শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে ১ মিনিট নিরবতা পালন শেষে প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন দলীয় নেতাকর্মীরা। বাকাল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মৃনাল কান্তি জয়ধর এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রইচ সেরনিয়াবাত, উপজেলা আওয়ামীলীগ সমন্বয়ক আবু সালেহ্ মোঃ লিটন সেরনিয়াবাত, মহিলা আওয়ামীলীগ নেত্রী ও জেলা পরিষদ সদস্য পেয়ারা ফারুক বখতিয়ার, বাকাল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বিপুল দাস, উপজেলা যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক অনিমেশ মন্ডল, উপজেলা যুবলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. ফিরোজ সিকদার, তরুন আওয়ামীলীগ নেতা শহিদুল ইসলাম পাইক, পয়সা মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও কলেজের অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মিন্টু সেরনিয়াবাত, সাধারণ সম্পাদক জাকির পাইক, পয়সা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক দীপক বৈদ্য, ইউপি সদস্য শিখা রানী শিকদার, মো. সোবাহান মিয়া, আওয়ামীলীগ নেতা অরুন মালাকার, এচাহাক পাইক, নজরুল সিকদার, শহিদুল ইসলাম শেখ, নির্মল হালদার প্রমুখ।
শোক সভায় অন্যদের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন, গৈলা মডেল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুল হোসেন টিটু তালুকদার, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা অপূর্ব লাল হালদার, গিয়াস উদ্দিন মোল্লা, এয়ার ফারুক বখতিয়ার, মো. হালিমুজ্জামান হালিম, মো. ইউনুচ আলী মিয়া, নিত্যানন্দ মজুমদার, মো. জয়নাল আবেদীন, উপজেলা শ্রমিকলীগ সাধারণ সম্পাদক মো. ছরোয়ার দাড়িয়া, সরকারী শহীদ আব্দুর রব সেরনিয়াবাত ডিগ্রী কলেজ সাবেক ভিপি তমল বাড়ৈ, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি সাইদুল সরদার, সহ-সভাপতি মো. আব্দুল্লাহ লিটন, যুবলীগ নেতা মো. বজলুল হক হাওলাদার, ইউপি সদস্য ইসহাক আলম পাইক, মহিলা আওয়ামীলীগ নেত্রী হাফিজা ইয়াসমিন। আলোচনা সভায় মিলাদ, দোয়া ও মোনাজাত শেষে তবারক বিতরণ করা হয়।

How useful was this post?

Click on a star to rate it!

Average rating 0 / 5. Vote count: 0

No votes so far! Be the first to rate this post.