স্বরূপকাঠিতে ডায়রিয়া রোগের প্রকোপ ঔষধ ও বেড সংকটে রোগীদের দূর্ভোগ

0
(0)

হযরত আলী হিরু,পিরোজপুর প্রতিনিধি ॥
পিরোজপুরের স্বরূপকাঠিতে ডায়রিয়ার প্রকোপ বেড়ে গেছে। হঠাৎ করে রোগী বেড়ে যাওয়ায় ঔষধ, স্যালাইন ও বেড সংকট দেখা দিয়েছে। আজ শনিবার সরোজমিনে হাসপাতালটিতে গিয়ে দেখা গেছে হাসপাতালটির প্রতিটি বেড় থেকে শুরু করে ফ্লোর ও সিড়ি পর্যন্ত রোগীতে ভরা। যার অধিকাংশই শিশু ও নারী। গত এক সপ্তাহে ২২৭ জন ডায়রিয়া রোগী স্বরূপকাঠির উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয়েছে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন কলেরা রোগের কোন ঔষধ ও কলেরা (আইভি) স্যালাইনও পর্যাপ্ত না থাকায় চিকিৎসকরা হিমসিম খাচ্ছেন। বেড়ের তুলনায় রোগীর সংখ্যা অনেক বেশি হওয়ায় চিকিৎসা দিতে অনেক বেগ পোহাতে হচ্ছে বলে জানান ওখানকার নার্সরা। স্বরূপকাঠি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ভারপ্রাপ্ত স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. আসাদুজ্জামান ও ডা. মো. নাজমুল হাসান মাসুদ খাঁন বলেন, বর্তমানে হাসপাতালে ডাইরিয়ায় আক্রান্ত রোগী বেশি আসছে। উপজেলা ছাড়াও পার্শ্ববর্তী বানারীপাড়া, নাজিরপুর ও ঝালকাঠি উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা থেকেও ওই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ডায়রিয়ার রোগী আসছে। রোগীর সংখ্যা বেশি হওয়ায় মজুদ ঔষধ প্রায় শেষ হয়ে গেছে। এই মুহুর্তে আইভি স্যালাইন যা আছে তা দিয়ে রোগীদের একটি করে দেওয়া হচ্ছে। এদিকে রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় ঔষধ সমস্যা দেখা দিয়েছে। ফার্মাসিষ্ট উজ্জল সিকদার জানান, ঔষধের চাহিদাপত্র পাঠানো হয়েছে। ইতিমধ্যে কিছু ঔষধ এসেছে বাকিটা দু’এক দিনের মধ্যেই এসে যাবে। হাসপাতালে ডায়রিয়ার রোগীর সংখ্যা বাড়লেও ঔষধ ও স্যালাইন সংকট কারন জানতে চাইলে, পিরোজপুর সিভিল সার্জন ডাঃ ফারুক আলম বলেন, আমাদের কোন ঔষধ বা স্যালাইনের সংকট নেই। উপজেলার প্রত্যেক হাসপাতালের চাহিদানুযায়ি খাবার ও রগ স্যালাইন চাহিদা পূরন করে থাকি। এতে কোন প্রকার বিলম্ব হয়না। তিনি বলেন দ্রুত ঔষধ পাঠানোর ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

How useful was this post?

Click on a star to rate it!

Average rating 0 / 5. Vote count: 0

No votes so far! Be the first to rate this post.