ঘরবাড়ি ছেড়ে পালাচ্ছে মিয়ানমারে খ্রিস্টানরা

0
(0)

আবদুল্লাহ আল নোমান//
মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলীয় প্রদেশে উপজাতি কাচিন বিদ্রোহী ও সেনাবাহিনীর সঙ্গে নতুন করে সংঘর্ষের ঘটনায় হাজার হাজার খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের মানুষ ঘরবাড়ি ছেড়ে পালাচ্ছে। বিবিসির খবরে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।
জাতিসংঘ জানায় চলতি মাসের শুরু থেকে এ পর্যন্ত প্রায় চার হাজার মানুষ তাদের ঘরবাড়ি থেকে পালিয়ে গেছে। সম্প্রতি ওই অঞ্চলে কাচিন ইন্ডিপেন্ডেন্স অর্গানাইজেশন (কেআইও) ও সরকারি বাহিনীর মধ্যে পুরনো দ্বন্দ্ব নতুন করে শুরু হওয়ার কারণে এ ঘটনা ঘটছে।
অপরদিকে মিয়ানমারের সেনাবাহিনী জানিয়েছে, তারা বিদ্রোহীদের ওপর বিমান হামলা চালিয়েছে। এদিকে চীনের সীমান্তবর্তী সংঘাত-পীড়িত এলাকাগুলোয় হাজার হাজার মানুষ আটকা পড়ে আছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। দাতব্য সংস্থাগুলো ওই এলাকায় যেতে সরকারের অনুমতি চেয়েছে।
জাতিসংঘের অফিস ফর দ্য কোঅর্ডিনেশন অব হিউম্যানিটারিয়ান অ্যাফেয়ার্স (ওসিএইচএ) প্রধান মার্ক কাটস বলেছেন, আমাদের সবচেয়ে বড় উদ্বেগের জায়গা হচ্ছে বেসামরিক ব্যক্তিদের নিরাপত্তা। বিশেষ করে গর্ভবতী নারী, বয়োবৃদ্ধ, শিশু ও প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের নিরাপত্তাই প্রধান।
প্রসঙ্গত, কাচিন জনগোষ্ঠীর লোকেরা প্রধানত খ্রিস্টান এবং ১৯৬১ সাল থেকে তারা বৌদ্ধ-সংখ্যাগরিষ্ঠ মিয়ানমারে স্বায়ত্বশাসিত এলাকা প্রতিষ্ঠার দাবিতে লড়াই করে যাচ্ছে। কেআইএ বিদ্রোহীদের হাতে প্রচুর অস্ত্রশস্ত্র আছে এবং তারা অন্যতম শক্তিশালী।

How useful was this post?

Click on a star to rate it!

Average rating 0 / 5. Vote count: 0

No votes so far! Be the first to rate this post.