মঠবাড়িয়ায় ইউপি সদস্য ও প্রবাসীকে কুপিয়ে জখম

0
(0)

হযরত আলী হিরু পিরোজপুর প্রতিনিধি
আধিপত্য বিস্তার ও পূর্ব শত্র“তার জের ধরে বৃহস্পতিবার রাতে মঠবাড়িয়ার বাইশকুড়া বাজারে প্রতিপক্ষরা ইউপি সদস্য ইসমাইল হোসেন খান (৩২) ও দুবাই প্রবাসী মহিবুল্লাহ (৩০) কে কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে। প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের কোপে ৬নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য ইসমাইল খানের ডান পায়ের কনিষ্ঠ তিন আঙ্গুল বিচ্ছিন্ন ও প্রবাসী মহিবল্লাহ’র ডান হাটুসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে গুরুতর জখম হয়েছে। রাতেই আহতদের স্থানীয়রা উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে পাঠালে কর্তব্যরত চিকিৎসক শুক্রবার সকালে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে প্রেরণ করেন।
প্রত্যক্ষদর্শী ও আহত সূত্রে জানাগেছে, স্থানীয় ক্ষমতাসীন দলের বিবাদমান রাজনৈতিক গ্র“পিংয়ের কারণে আধিপত্য বিস্তারের জের ধরে দুই পক্ষের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। এ নিয়ে ইতিমধ্যে বেশ কয়েকবার হামলা ও ভাংচুরের ঘটনাসহ বেশ কয়েকদিন ধরে ওই এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছিল।
আহত প্রবাসী মহিবুল্লাহ্র ছোট ভাই আমানউল্লাহ জানান, বৃহস্পতিবার রাতে ইউপি সদস্য ইসমাইল খান ও প্রবাসী মহিবুল্লাহ্সহ কয়েকজন বাইশকুড়া বাজারে ইউসুফ মল্লিকের দোকানের সামনে গল্প করছিল।
তিনি আরও বলেন, তার প্রবাসী ভাই মহিবুল্লাহ্র কাছে শামীম, জুয়েল, নান্টু কয়েকদিন আগে ১লাখ টাকা চাঁদা দাবী করে। চাঁদা না দেওয়ায় তার ভাইকে হুমকি দেয়। এঘটনায় তিনি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন। ওই চাঁদা না দিয়ে থানায় অভিযোগ দায়েরের পর ক্ষিপ্ত হয়ে তাকেও সন্ত্রাসীরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে।
স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম রিপন জমাদ্দার জানান, এলাকায় গাঁজা, জুয়া এবং ইয়াবা ব্যবসায় বাঁধা দেয়ায় ইউপি সদস্য ইসমাইলের ওপর সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়েছে। সন্ত্রাসী শামীমের বিরুদ্ধে থানায় ৪টি মাদক মামলা, নান্টুর বিরুদ্ধে স্থানীয় আনোয়ার মাতুব্বর হত্যা ও ডাকাতি মামলাসহ এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে।
অভিযুক্ত শামীমের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি হামলার ঘটনা কিছুই জানেন না দাবী করেন। মঠবাড়িয়া থানা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. সৌমিত্র সিনহা রায় জানান, আহতদের জখমের অবস্থা খুবই গুরুতর। ইউপি সদস্যের পায়ের জখমের কারণে স্বাভাবিক চলাচল ব্যাহত হতে পারে।
মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ কেএম তারিকুল ইসলাম জানান, রাজনৈতিক কোন্দলের কারনেই এ ঘটনাটি ঘটেছে। এঘটনায় এখন পর্যন্ত (দুপুর দু’টা) কোন লিখিত অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।
অপরদিকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে উপজেলার পূর্ব পাতাকাটা গ্রামের মৃত আঃ হকের দুবাই প্রবাসী পুত্র জসিম হাওলাদার (৩০) গুরুতর আহত করেছে প্রতিপক্ষরা। প্রবাসী জসিমকে স্বজনরা উদ্ধার করে রাতেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।
জানাগেছে, প্রতিবেশী তিন সহোদর ইউনুচ, ইউসুফ ও বাবুল মোক্তারের সাথে প্রবাসী জসিমের ৫ কাঠা ফসলী জমি নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। স্থানীয় সরদার বাড়ীর সম্মুখে ওই জমিতে বুধবার প্রতিপক্ষরা জমির আইল (প্রাচির) ভেঙ্গে নতুন সীমানা নির্ধারনের এক পর্যায় মৃত লেফাজ মোক্তারের তিন পুত্র ধারালো অস্ত্র নিয়ে জসিমের ওপর হামলা চালায়।

How useful was this post?

Click on a star to rate it!

Average rating 0 / 5. Vote count: 0

No votes so far! Be the first to rate this post.